বিসিএস প্রিলিমিনারি বাংলা প্রস্তুতি

বাংলা সাহিত্যের যুগ-বিভাজন

➡বাংলা সাহিত্যের যুগ তিনটি ভাগে বিভক্ত:

১. আদিযুগ (৬৫০-১২০০ খ্রী:)

২. মধ্যযুগ (১২০১-১৮০০ খ্রী:)

৩. আধুনিক যুগ (১৮০১ খ্রী: -বর্তমান)

*অন্ধকার যুগঃ ১২০১-১৩৫০ খ্রী।

➡আধুনিক বাংলা ভাষার পরিধি শুরু হয়েছে—–১৮০১ সাল থেকে।

প্রস্তুতিপর্বঃ ১৮০০-১৮৬০,

বিকাশপর্বঃ ১৮৬০-১৯০০,

রবীন্দ্রপর্বঃ ১৯০০-১৯৩০,

রবীন্দ্রোত্তরঃ ১৯৩০-১৯৪৭

➡বাংলাদেশঃ ১৯৪৭-বর্তমান
আদি যুগঃ

➡বাংলা সাহিত্যের আদিযুগের ব্যাপ্তিকালঃ ৬৫০ থেকে ১২০০ খ্রী।

➡খ্রিষ্টীয় দশম থেকে দ্বাদশ শতাব্দীর মধ্যবর্তী সময়ে রচিত চর্যা পদাবলি ছিল সহজিয়া বৌদ্ধ সিদ্ধাচার্যদের সাধনসংগীত

➡খনার বচন বাংলা সাহিত্যেরঃ আদি যুগের সৃষ্টি

➡খনার বচন আলোকপাত করেঃ কৃষি সংক্রান্ত বিষয়ে

➡“আপণা মাংসে হরিণা বৈরী” লিখেছেনঃ ভুসুকুপা

➡সান্ধভাষার প্রয়োগ দেখা যায়ঃ চর্যাপদে

➡Origin and Development of Bengali Language বা ODBL বা “বাঙলা ভাষার উৎপত্তি ও বিকাশ” গ্রন্থটির লেখকঃ ড. সুনীতিকুমার চট্টোপাধ্যয়
চর্যাপদঃ

➡বাংলা সাহিত্যের আদিতম নিদর্শনের নামঃ চর্যাপদ

➡বাংলা সাহিত্যের প্রখম কবিতা সংকলনের নামঃ চর্যাপদ

➡চর্যা শব্দের অর্থঃ আচরন

➡চর্যাপদের অপর নামসমূহঃ চর্যাচর্যবিনিশ্চয়, চর্যাগীতিকোষ, চর্যাগীতি

➡চর্যাপদ নেপালের রাজদরবারের গ্রন্থাগার থেকে আবিষ্কার করেনঃ ড. হরপ্রসাদ শাস্ত্রী

➡ড. হরপ্রসাদ শাস্ত্রীর উপাধিঃ মহামহোপাধ্যয়

➡চর্যাপদ আবিষ্কৃত হয়ঃ ১৯০৭ সালে

➡চর্যাপদ গ্রন্থে মোট পদ পাওয়া গেছেঃ সাড়ে ছিচল্লিশটি

➡চর্যাপদের খন্ডিত আকারে পাওয়া যায়ঃ ২৩ নং পদ

➡চর্যাপদের পদ পাওয়া যায়নিঃ ২৪, ২৫, ৪৮

➡বাংলা সাহিত্যের আদি কবিঃ লুইপা

➡চর্যাপদে সবচেয়ে বেশি পদ রচনা করেছেনঃ কাহ্নপা

➡চর্যাপদের আধুনিকতম পদকর্তাঃ সরহ বা ভুসুকু

➡চর্যাপদের বাঙালি পদকর্তাঃ শবরপা

➡চর্যাপদের একমাত্র নারী পদকর্তাঃ কুক্কুরীপা

➡ড. মুহম্মদ শহীদুল্লাহর মতে চর্যাপদের রচনাকালঃ ৬৫০ খ্রিষ্টাব্দ

➡অধিকাংশের মতে চর্যাপদের রচনাকালঃ ৯৫০ – ১২০০ খ্রিষ্টাব্দ

➡ড. মুহম্মদ শহীদুল্লাহর মতে চর্যাপদের পদ সংখ্যাঃ ৫০ টি

➡সুকুমার সেনের মতে চর্যাপদের পদ সংখ্যাঃ ৫১ টি

➡ড. মুহম্মদ শহীদুল্লাহর মতে চর্যাপদের পদকর্তাঃ ২৩ জন

➡সুকুমার সেনের মতে চর্যাপদের পদকর্তাঃ ২৪ জন

➡ড. মুহম্মদ শহীদুল্লাহর মতে চর্যাপদের প্রথম পদকর্তাঃ শবরপা

➡অধিকাংশের মতে চর্যাপদের প্রথম পদটির রচয়িতাঃ লুইপা

Check Also

বিভিন্ন প্রকার কালচার (চাষ)

বিভিন্ন প্রকার কালচার (চাষ)  পরীক্ষায় আসার মতো গুরুত্বপূর্ণ গুলো বাছাই করে Important culture গুলো দেয়া …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *