বিভিন্ন প্রকার গ্যাস ও জালানি

Discuss Today

বিভিন্ন প্রকার গ্যাস ও জালানি

প্রশ্ন। গ্যাস কাকে বলে?

উত্তর : সাধারণ তাপমাত্রায় যেসব পদার্থ বায়বীয় অবস্থায় থাকে তাদেরকে গ্যাস বলে।

প্রশ্ন। সবচেয়ে হালকা গ্যাস কোনটি?

উত্তর : হাইড্রোজেন।

প্রশ্ন। সবচেয়ে ভারী গ্যাস কোনটি?

উত্তর : রেডন।

প্রশ্ন। নিষ্ক্রিয় গ্যাস কোনটি?

উত্তর: হিলিয়াম, নিয়ন, আর্গন, ক্রিপটন, জেনন, রেডন।

প্রশ্ন। কোন মৌলটি সবচেয়ে বেশি নিষ্ক্রিয়?

উত্তর: হিলিয়াম।

প্রশ্ন। নিষ্ক্রিয় গ্যাসের মধ্যে কোনটি তেজস্ক্রিয়?

উত্তর: রেডন। (সবচেয়ে ভারী গ্যাস তো তাই তেজ বেশি!)

প্রশ্ন। সাধারণ বৈদ্যুতিক বাল্বের ভিতর কোন গ্যাস ব্যবহার করা হয়?

উত্তর: নাইট্রোজেন।

প্রশ্ন। টিউব লাইটের ভিতর কোন গ্যাস ব্যবহার করা হয়?

উত্তর: আর্গন ও নিয়ন

প্রশ্ন। হাইড্রোজেন গ্যাস অপেক্ষাকৃত নিষ্ক্রিয় হওয়া সত্ত্বেও বেলুন ও উড়োজাহাজে কেন হিলিয়াম গ্যাস ব্যবহার করা হয়?

উত্তর: হিলিয়াম নিষ্ক্রিয় গ্যাস বলে আগুন ধরে নাই তাই। আবার হাইড্রোজেন গ্যাস একটি দাহ্য গ্যাস তাই সহজেই আগুন ধরার সম্ভাবনা থাকে।

প্রশ্ন। সিলেন্ডারে করে যে গ্যাস বিক্রি করা হয় তার প্রধান উপাদান কী?

উত্তর: বিউটেন।

প্রশ্ন। প্রাকৃতিক গ্যাসের প্রধান উপাদান কী?

উত্তর: মিথেন।

প্রশ্ন। প্রাকৃতিক গ্যাসে মিথেনের পরিমাণ কত?

উত্তর: ৮০%-৯০%।

প্রশ্ন। আমাদের দেশে প্রাপ্ত প্রাকৃতিক গ্যাসে মিথেনের পরিমাণ কত?

উত্তর: ৯৫%-৯৯%।

প্রশ্ন। আমাদের দেশে ইউরিয়া সার তৈরির প্রধান কাঁচামাল হিসেবে কী ব্যবহার করা হয়?

উত্তর: প্রাকৃতিক গ্যাস।

প্রশ্ন। প্রাকৃতিক গ্যাস সৃষ্টির মূল কারণ কী?

উত্তর: পৃথিবীর অভ্যন্তরে প্রচণ্ড তাপ ও চাপ ।

প্রশ্ন। CNG এর পূর্ণরূপ কী?

উত্তর: Compressed Natural Gas. অর্থাৎ, কম্প্রেস করা প্রাকৃতিক গ্যাস।

প্রশ্ন। এলএনজি (LNG) গ্যাস কী?

উত্তর: প্রাকৃতিক গ্যাসের একটি রূপ হলো এলএনজি। LNG-এর পূর্ণরূপ হলো Liquefied Natural Gas বা তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস। মূলত এলএনজি হচ্ছে প্রাকৃতিক গ্যাস, যাকে সংরক্ষণ ও পরিবহণের সুবিধার্থে অস্থায়ীভাবে তরলে রূপান্তর করা হয়।

প্রশ্ন। সিএনজিতে কোন গ্যাস কম্প্রেস করা হয়?

উত্তর: মিথেন।

প্রশ্ন। বাসা বাড়িতে যে গ্যাস ব্যবহার করি তা কী?

উত্তর: মিথেনে সাথে বিউটেন ও প্রোপেনের মিশ্রণ।

প্রশ্ন। মোমকে পুড়লে কোন গ্যাস উৎপন্ন হয়?

উত্তর: কার্বন ডাই-অক্সাইড।

প্রশ্ন। বায়ুমণ্ডলের ওজনস্তর ক্ষয়/ছিদ্রের জন্য দায়ী কোন গ্যাস?

উত্তর: সিএফসি বা ক্লোরোফ্লোরো কার্বন ।

প্রশ্ন। পৃথিবীর উষ্ণতা বৃদ্ধির জন্য দায়ী কোন গ্যাস?

উত্তর: কার্বন ডাই-অক্সাইড।

প্রশ্ন। কোন গ্যাস নিজে জ্বলে কিন্তু অন্যকে জ্বলতে সাহায্য করে না?

উত্তর: হাইড্রোজেন। (মনে রাখুন, সে ‘High’ বা উচ্চ তাই নিজে নিজে জ্বলতে পারে)

প্রশ্ন। কোন গ্যাস নিজে জ্বলে না কিন্তু অন্যকে জ্বলতে সাহায্য করে?

উত্তর: অক্সিজেন।

প্রশ্ন। কোন গ্যাস নিজে জ্বলে না আবার অন্যকে জ্বালতেও সাহায্য করে না?

উত্তর: কার্বন ডাই-অক্সাইড

প্রশ্ন। অগ্নি নির্বাপক যন্ত্রে আগুন নিভানোর জন্য কোন গ্যাস ব্যবহার করা হয়?

উত্তর: কার্বন ডাই-অক্সাইড।

প্রশ্ন। কোন গ্যাসটি বিষাক্ত?

উত্তর: কার্বন মনো-অক্সাইড।

প্রশ্ন। কোন জ্বালানী পোড়ালে সালফার ডাই-অক্সাইড গ্যাস নির্গত হয়?

উত্তর: ডিজেল।

প্রশ্ন । গাড়ি থেকে নির্গত কালো ধোঁয়ায় কোনটি থাকে?

উত্তর: বিষাক্ত কার্বন মনো-অক্সাইড।

প্রশ্ন। জীবাশ্ম জ্বালানী পোড়ালে বায়ুমণ্ডলে কোন গ্যাসের পরিমাণ সবচেয়ে বেশি বৃদ্ধি পায়?

উত্তর: কার্বন ডাই-অক্সাইড।

প্রশ্ন। প্রাকৃতিক গ্যাস, কয়লা, পেট্রোলিয়াম পোড়ালে কোন গ্যাস উৎপন্ন হয়?

উত্তর: কার্বন ডাই-অক্সাইড।

প্রশ্ন: বায়ুমণ্ডলে/বায়ুতে কোন গ্যাসের পরিমাণ সবচেয়ে বেশি?

উত্তর: নাইট্রোজেন।

প্রশ্ন : সমুদ্রতীরে কোন গ্যাসটির প্রাচুর্য থাকে?

উত্তর : নাইট্রোজেন।

প্রশ্ন। প্রাকৃতিক গ্যাসের সাহায্যে কোন সার তৈরি হয়?

উত্তর: ইউরিয়া।

প্রশ্ন। ইউরিয়া সারে কত% নাইট্রোজেন থাকে?

উত্তর: ৪৬%।

প্রশ্ন। উদ্ভিদের প্রধান পুষ্টি উপাদান কোনটি ?

উত্তর: নাইট্রোজেন ।

প্রশ্ন। পানি ঢেলে কেরোসিনের আগুন নেভানো যায় না কেন?

উত্তর: কেরোসিন পানির চেয়ে হালকা।

প্রশ্ন । পানি দিয়ে পেট্রোলের আগুন নেভানো যায় না কেন?

উত্তর পেট্রোল পানির চেয়ে হালকা।

প্রশ্ন। পেট্রোলিয়াম কী?

উত্তর: অসম্পৃক্ত হাইড্রোকার্বন যৌগের মিশ্রণ।

প্রশ্ন। প্রাণীর মলমূত্র থেকে ব্যাকটেরিয়ার ফারমেন্টেশন প্রক্রিয়ায় কী উৎপন্ন হয়?

উত্তর: মিথেন।

প্রশ্ন। বায়োগ্যাসের প্রধান কাঁচামাল কী?

উত্তর: গোবর ও পানি।

প্রশ্ন। বায়োগ্যাসে গোবর ও পানির অনুপাত কত?

উত্তর: ১:২।

প্রশ্ন। বায়োগ্যাস তৈরির পর যে অবশিষ্টাংশ থাকে তা কী হিসেবে ব্যবহার করর যায়?

উত্তর: সার হিসেবে ব্যবহার করা যায়।

প্রশ্ন। সিএফসি (CFC) গ্যাসের বাণিজ্যিক নাম কী?

উত্তর: ফ্রেয়ন।

প্রশ্ন। রেফ্রিজারেটর বা এসির কম্প্রেসারে সাধারণ কোন গ্যাস ব্যবহার করা হয়?

উত্তর: ফ্রেয়ন।

প্রশ্ন। বর্তমানে পরিবেশ বান্ধব কোন গ্যাসটি রেফ্রিজারেটরের কম্প্রেসারে ব্যবহার করা হয়?

উত্তর: ফ্রেয়ন গ্যাসটি পরিবেশ ও বায়ুমণ্ডলের জন্য ক্ষতিকর বিধায় বর্তমানে রেফ্রিজারেটরের কম্প্রেসারে টেট্রাফ্লুরো ইথেন ব্যবহার করা হয়।

প্রশ্ন। শক্তির প্রধান উৎস কী?

উত্তর: সূর্য।

প্রশ্ন। বায়ুমণ্ডলের মোট শক্তির কতভাগ সূর্য থেকে আসে?

উত্তর: ৯৯.৯৭%

প্রশ্ন। সূর্যে কোন গ্যাস রয়েছে?

উত্তর: হাইড্রোজেন ও হিলিয়াম।

প্রশ্ন। বায়ুমণ্ডলের প্রধান দুটি গ্যাসের নাম কী?

উত্তর: নাইট্রোজেন ও অক্সিজেন।

প্রশ্ন। বায়ুমণ্ডলে নাইট্রোজেনের পরিমাণ কত?

উত্তর: ৭৮.০২%।

প্রশ্ন। বায়ুমণ্ডলে অক্সিজেনের পরিমাণ কত?

উত্তর: ২০.৭১%।

প্রশ্ন। জীবাশ্ম জ্বালানি বলতে কী বোঝায়?

উত্তর: লক্ষ লক্ষ বছর আগে ভূমিকম্প বা অন্য কোনো কারণে জীবদেহ। অর্থাৎ প্রাণী ও উদ্ভিদ মাটির নিচে চাপা পড়ে পৃথিবীর অভ্যন্তরের প্রচণ্ড
তাপ ও চাপের ফলে যে জ্বালানির সৃষ্টি হয় তাকে জীবাশ্ম জ্বালানি বা Fossil Fuel বলে। আরো সহজভাবে বললে, মাটির নিচ থেকে যে সব জ্বালানি পাওয়া যায় সেগুলোই জীবাশ্ম জ্বালানি।

প্রশ্ন। জীবাশশ্ম জ্বালানিগুলো প্রধানত কী কী?

উত্তর: প্রাকৃতিক গ্যাস, কয়লা, তেল, বিভিন্ন প্রকার পেট্রোলিয়াম ইত্যাদি।

প্রশ্ন। ‘ড্রাই আইস’ কী?

উত্তর ঃ হিমায়িত বা শুদ্ধ কার্বর ডাই-অক্সাইড হলো ‘ড্রাই আইস’। ড্রাই আইসের আসলে কোনো আইস তথা বরফ নয়। কার্বন ডাই অক্সাইডকে খুব ঠান্ডার মধ্যে রেখে প্রচণ্ড চাপ প্রয়োগ করলে তা জমাট বাধতে শুরু করে। যা দেখতে অনেকটা বরফের মতো কিন্তু হাত দিয়ে ধরলে হাত ভিজে না। তাই এই কারণে এর নামকরণ করা হয়েছে ‘ড্রাই আইস’।

নোট মোস্তাফিজার মোস্তাক

Check Also

বিভিন্ন প্রকার কালচার (চাষ)

বিভিন্ন প্রকার কালচার (চাষ)  পরীক্ষায় আসার মতো গুরুত্বপূর্ণ গুলো বাছাই করে Important culture গুলো দেয়া …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *